Home / সারা বাংলা / আশুগঞ্জে মৃত্যুর ২৩ দিন পর হত্যার অভিযোগে কবর থেকে ছাত্রদল নেতার লাশ উত্তোলন

আশুগঞ্জে মৃত্যুর ২৩ দিন পর হত্যার অভিযোগে কবর থেকে ছাত্রদল নেতার লাশ উত্তোলন

হাসান জাবেদ,ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকেঃ
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জে মৃত্যুর ২৩ দিন পর হত্যার অভিযোগে উপজেলার সাবেক ছাত্রদলের সভাপতি আল মাসুদ সিকদার সজল ওরফে সজল সিকদারেরর (৪৬) লাশ কবর থেকে উত্তোলন করা হয়েছে। রোববার (১৪ আগস্ট) দুপুরে উপজেলার সোহাগপুর আতকাপাড়া কবরস্থান থেকে তার মরদেহটি ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে উত্তোলন করা হয়।
সজল সিকদার উপজেলার সোনারাপুরের মৃত মোস্তাফা আলী সিকদারের ছেলে এবং আশুগঞ্জ উপজেলা জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি ছিলেন।

এসময় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও আশুগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) কাজী তাহমিনা সারমিন ও থানা পুলিশের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

আশুগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজাদ রহমান জানান, সজল সিকদারের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে তার আপন ভগ্নিপতি মার্সাল সিকদার ও তার ভাই বাবুল সিকদারের সঙ্গে সম্পদ নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে মাস দেড়েক আগে দুই পরিবারের মাঝে সংঘর্ষ হয়। এ সময় সজল সিকদার আহত হয়েছিলেন। পাশাপাশি তার কিডনি ও লাংয়ে সমস্যা ছিল। তাই তাকে দ্রুত ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল।

মারামারির ঘটনায় সজল সিকদারের ভাই খোকন সিকদার বাদি হয়ে ভগ্নিপতি মার্সাল সিকদার ও তার ভাই বাবুল সিকদার সহ আরও কয়েকজনকে আসামী করে আদালতে মামলা দায়ের করা হয়। এরই মাঝে সজল সিকদার চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ২২ জুলাই মারা গেলে কবর দেওয়া হয়।

আদালতের নির্দেশে গত ১ আগস্ট মামলা থানায় নথিভুক্ত করা হয়। ওই মামলায় সজল সিকদারকে হত্যার অভিযোগে তুলে ৩০২ ধারা যুক্ত করতে আদালতে আবেদন করেন বাদি খোকন সিকদার। পরে আদালতের নির্দেশে সজল সিকদারের মরদেহ একজন ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে তুলে ময়নাতদন্তের জন্য প্রেরণ করা হয়। ময়নাতদন্তে প্রমাণিত হলে ওই মামলায় হত্যার জন্যে ৩০২ ধারা যুক্ত করা হবে বলে ওসি জানান।

Check Also

এসএসসি পরিক্ষা স্থগিত হওয়ায় বিরামপুরে ছাত্র ছাত্রীদের উদ্বেগ

রেজোওয়ান আলী বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি অনিবার্ষ কারন বশত দিনাজপুর বোর্ডে এসএসসির পরীক্ষা স্থগিত হওয়ায় বিরামপুর …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x