Home / আর্ন্তজাতিক / আরও একটি হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার দাবি উ. কোরিয়ার

আরও একটি হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার দাবি উ. কোরিয়ার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  :   আরও একটি হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালানোর দাবি করেছে উত্তর কোরিয়া। মাত্র এক সপ্তাহের ব্যবধানে এ নিয়ে দ্বিতীয় বার ব্যালাস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে দেশটি। এর আগে জাপান এবং দক্ষিণ কোরিয়ার পক্ষ থেকে পিয়ংইয়ংয়ের বিরুদ্ধে হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়ার অভিযোগ ওঠে। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার (১১ জানুয়ারি) ক্ষেপণাস্ত্রটি উৎক্ষেপণ করা হয়।

উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জং উনের উপস্থিতিতে ওই ক্ষেপণাস্ত্রটি উৎক্ষেপণ করা হয়। রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা কেসিএনএ জানিয়েছে, মঙ্গলবার এক হাজার কিলোমিটার (৬২১ মাইল) দূরের একটি লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হেনেছে ক্ষেপণাস্ত্রটি।

দূরপাল্লার এবং শব্দের চেয়ে কয়েকগুণ দ্রুতগতিসম্পন্ন ক্ষেপণাস্ত্র এটি। ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের চেয়ে বেশি সময় ধরে শনাক্তকরণ রাডারকে ফাঁকি দিতে পারে এ ধরনের ক্ষেপণাস্ত্র। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত উত্তর কোরিয়া তিনটি হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ করলো।

এই মূহুর্তে যুক্তরাষ্ট্র এবং চীনের মতো অল্প কয়েকটি দেশেরই কেবল হাইপারসনিক ক্ষেপণাস্ত্র আছে। বিশ্বের পরাশক্তিগুলোর মধ্যে এই ক্ষেপণাস্ত্র নিয়ে প্রতিযোগিতা চলছে।

এতদিন ধরে বিভিন্ন দেশের হাতে যেসব দূরপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র ছিল, সেগুলো অনেকটা সেকেলে হয়ে যাচ্ছে এবং তার শূন্যস্থান পূরণ করতেই এই প্রতিযোগিতা। কার আগে কে নতুন প্রজন্মের দূরপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র তৈরি করতে পারে তা নিয়ে জোর প্রতিযোগিতা চলছে।

কয়েকদিন আগে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন পিয়ংইয়ংয়ের প্রতিরক্ষা শক্তিশালী করার ঘোষণার পরই এই ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার খবর পাওয়া গেল।

হাইপারসনিক অস্ত্র সাধারণত ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের চেয়ে কম উচ্চতায় লক্ষ্যবস্তুর দিকে উড়ে যায় এবং শব্দের পাঁচ গুণেরও বেশি গতিতে ছোটে, যেমন ঘণ্টায় প্রায় ৬ হাজার ২শ কিলোমিটার গতিতে ছুটতে পারে এই ক্ষেপণাস্ত্র।

Check Also

আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে রাশিয়া

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : নতুন আন্তঃমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে রাশিয়া। বুধবার দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x