Breaking News
Home / ফিচার / যে কারণে মাটির কাপে চা পান করবেন

যে কারণে মাটির কাপে চা পান করবেন

কাগজ বা প্লাস্টিক কাপে যেখানে সেখানে চা খাচ্ছেন কিন্তু জানলে আতঙ্কিত হবেন যে এই ডিসপোজেবল কাগজ বা প্লাস্টিক কাপে চা পান একেবারেই নিরাপদ নয়। বিজ্ঞানীদের গবেষণাতে দেখা গিয়েছে দিনে তিন বার এই ধরনের পাত্রে কেউ চা পান করলে তার পেটের ভেতর ৭৫ হাজার ক্ষুদ্র মাইক্রোপ্লাস্টিক দানা জমা পড়ে!

বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, এই মাইক্রোপ্লাস্টিক কণা প্যালাডিয়াম, ক্রোমিয়াম ও ক্যাডমিয়ামের মতো বিষাক্ত ধাতুর বাহক হিসাবে কাজ করে এবং তার সঙ্গে একাধিক জৈব উপাদান মানবশরীরে প্রবেশকরাতে সহায়ক হয়। এর জেরে শরীরের মারাত্মক সংক্রমণ ও অন্যান্য সমস্যা দেখা দিতে পারে।

কাগজ বা প্লাস্টিকের কাপে চা খাওয়া সবচেয়ে বিপজ্জনক। এমনই মত বিজ্ঞানীদের। কারণ এতে হরমোনের ভারসাম্য নষ্ট হতে পারে। কিন্তু এ সব দিক থেকে মাটির ভাঁড় একেবারে নিরাপদ।

সাধারণত বাড়িতে চা খাওয়ার সময়ে কাচ বা চিনামাটির কাপই বেশি ব্যবহার হয়। কিন্তু রাস্তায় বেরিয়ে চা খেতে ইচ্ছা করলে? রাস্তার ছোট চায়ের দোকানে প্লাস্টিকের কাপে চা পরিবেশন করা হয়। প্রতিবেশি দেশ ভারতে মাটির কাপে চা পানের প্রচলন রয়েছে। বাংলাদেশেও কিছু কিছু কপি শপে মাটির ভাঁড়ে চা পরিবেশন করা হয়।

মাটির পাত্রে চা খেলে কী হয়, সে কথা না জেনেও অনেকে এতে চা খেতে পছন্দ করেন। তার কারণ পোড়া মাটির ছোট পাত্রটিতে গরম চা ঢাললে এক ধরনের সুবাস বেরোতে থাকে। কাচ বা চিনেমাটির পাত্রে তা হয় না। এই গন্ধই চা পানের আনন্দ আরও বাড়িয়ে দেয়।

কিন্তু শুধুই কি গন্ধ? না কি আরও কিছু হয় ভাঁড়ে চা ঢাললে? বিজ্ঞানীরা বলছেন, পোড়া মাটির পাত্রে চা ঢাললে, তাতে কিছু সামান্য রাসায়নিক বদল হয়। তবে এর কোনওটিই মানুষের শরীরের জন্য ক্ষতিকারক নয়। বরং উল্টোটাই। ভাঁড়ে চা খেলে কিছু কিছু সুবিধাও হতে পারে।

পুষ্টিবিদদের মতে, পোড়া মাটির পাত্রে চায়ের মতো উষ্ণ পানীয় ঢাললে, তার পুষ্টিগুণ সম্পূর্ণ রূপে বজায় থাকে। কাগজ বা প্লাস্টিকের কাপে তা হয় না। শুধু তাই নয়, চা খেলে অনেকেরই অ্যাসিডিটির সমস্যা হয়। বিশেষ করে দুধ মেশানো চা খেলে অনেকেই অম্বলে ভোগেন। মাটির ভাঁড়ে চা খেলে এই সমস্যা অনেক কমে যায়। তার প্রধান কারণ, পোড়া মাটি চায়ের অম্লতার পরিমাণ কমিয়ে দেয়।

Check Also

হাফেজ আবশ্যক

আঞ্জুমানে রহমানিয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া ট্রাস্ট ঢাকার নিয়ন্ত্রণাধীন, গাউসিয়া তৈয়্যবিয়া তাহেরিয়া একাডেমির জন্য দক্ষ ও অভিজ্ঞ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x