Breaking News
Home / ফটো গ্যালারি / যে কারণে ভেঙে গেল শবনম ফারিয়ার সংসার

যে কারণে ভেঙে গেল শবনম ফারিয়ার সংসার

ফারিয়া শনিবার সন্ধ্যায় নিজের ফেসবুকে লেখেন, ‘মানুষের জীবন নদীর মতো। কখনো জোয়ার, কখনো ভাটা। কখনো বৃষ্টিতে পানি বেড়ে যায়, শীতকালে পানি শুকিয়ে যায়। আমাদের জীবনেও এমনটা হয়! আমাদের জীবনে কিছু মানুষ আসে; কেউ কেউ স্থায়ী হয়, কেউ কেউ কিছু কারণে স্থায়িত্ব ধরে রাখতে পারে না।’ ছবি: সংগৃহীত

ফারিয়া শনিবার সন্ধ্যায় নিজের ফেসবুকে লেখেন, ‘মানুষের জীবন নদীর মতো। কখনো জোয়ার, কখনো ভাটা। কখনো বৃষ্টিতে পানি বেড়ে যায়, শীতকালে পানি শুকিয়ে যায়। আমাদের জীবনেও এমনটা হয়! আমাদের জীবনে কিছু মানুষ আসে; কেউ কেউ স্থায়ী হয়, কেউ কেউ কিছু কারণে স্থায়িত্ব ধরে রাখতে পারে না।’
শবনম ফারিয়ার এই বিচ্ছেদের সংবাদ জানানোর পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তুমুল প্রতিক্রিয়া শুরু হয়। ছবি: সংগৃহীত

শবনম ফারিয়ার এই বিচ্ছেদের সংবাদ জানানোর পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তুমুল প্রতিক্রিয়া শুরু হয়।

তবে রবিবার সকালে শবনম ফারিয়া অনুরোধ করলেন, তাদের সম্পর্ক নিয়ে কে যেন কোনো রকম প্রত্যাশা না রাখে। তিনি এ-ও জানালেন, যথেষ্ট কারণ ছিল বলেই বিচ্ছেদের মতো কঠিন একটি সিদ্ধান্তে আসতে হলো।’ ছবি: সংগৃহীত

তবে রবিবার সকালে শবনম ফারিয়া অনুরোধ করলেন, তাদের সম্পর্ক নিয়ে কে যেন কোনো রকম প্রত্যাশা না রাখে। তিনি এ-ও জানালেন, যথেষ্ট কারণ ছিল বলেই বিচ্ছেদের মতো কঠিন একটি সিদ্ধান্তে আসতে হলো।’

সমালোনার জবাবে ফারিয়া বলেন ‘তার মানে কী দাঁড়ালো, মানুষ বেøইম গেইম, গালিগালাজ, মানুষকে ছোট করা পছন্দ করে! বিচ্ছেদ কেন সুন্দর হবে! কেন বলবে আমরা বিচ্ছেদের পরও বন্ধুত্ব থাকবে! যেই মানুষটা পাঁচ বছর ধরে আমার জীবনের সঙ্গে প্রত্যক্ষ-পরোক্ষভাবে জড়িয়ে ছিল, এত এত স্মৃতি, যা চাইলেই মোছা যাবে না, তাকে কিভাবে ছোট করি?’ ছবি: সংগৃহীত

সমালোনার জবাবে ফারিয়া বলেন ‘তার মানে কী দাঁড়ালো, মানুষ বেøইম গেইম, গালিগালাজ, মানুষকে ছোট করা পছন্দ করে! বিচ্ছেদ কেন সুন্দর হবে! কেন বলবে আমরা বিচ্ছেদের পরও বন্ধুত্ব থাকবে! যেই মানুষটা পাঁচ বছর ধরে আমার জীবনের সঙ্গে প্রত্যক্ষ-পরোক্ষভাবে জড়িয়ে ছিল, এত এত স্মৃতি, যা চাইলেই মোছা যাবে না, তাকে কিভাবে ছোট করি?’

ফারিয়া আরও বলেন, ‘অবশ্যই মানুষটার সঙ্গে আমার যথেষ্ট কারণ না থাকলে বিচ্ছেদের মতো সিদ্ধান্তে আসতাম না, কাউকে অসম্মান করে যেমন কেউ বড় হতে পারে না, তেমনি আমাদের কাছের সবাই ও পরিবার জানে কেন এই সিদ্ধান্তে আসা!  তার বাইরে কাউকে কোনো ধরনের এক্সপ্লেনেশন দেওয়ার দরকারই নেই !’ ছবি: সংগৃহীত

ফারিয়া আরও বলেন, ‘অবশ্যই মানুষটার সঙ্গে আমার যথেষ্ট কারণ না থাকলে বিচ্ছেদের মতো সিদ্ধান্তে আসতাম না, কাউকে অসম্মান করে যেমন কেউ বড় হতে পারে না, তেমনি আমাদের কাছের সবাই ও পরিবার জানে কেন এই সিদ্ধান্তে আসা! তার বাইরে কাউকে কোনো ধরনের এক্সপ্লেনেশন দেওয়ার দরকারই নেই !’

২০১৫ সালে ফেসবুকের মাধ্যমে হারুন অর রশিদ অপুর সঙ্গে শবনম ফারিয়ার বন্ধুত্ব হয়। এরপর ফেসবুকে কথা বলতে বলতে তাদের দুজনের মধ্যে বন্ধুত্বের বন্ধন গভীর হয়। তিন বছর ধরে চলে তাদের বন্ধুত্ব। তারই একপর্যায়ে দুজনই পরস্পরের প্রতি ভালোবাসা অনুভব করেন। ছবি: সংগৃহীত

২০১৫ সালে ফেসবুকের মাধ্যমে হারুন অর রশিদ অপুর সঙ্গে শবনম ফারিয়ার বন্ধুত্ব হয়। এরপর ফেসবুকে কথা বলতে বলতে তাদের দুজনের মধ্যে বন্ধুত্বের বন্ধন গভীর হয়। তিন বছর ধরে চলে তাদের বন্ধুত্ব। তারই একপর্যায়ে দুজনই পরস্পরের প্রতি ভালোবাসা অনুভব করেন।

অপু-ফারিয়ার সম্পর্ক তাদের দুই পরিবার জানলে তারাও এতে পূর্ণ সমর্থন দেন। ২০১৯ সালের ফেব্রæয়ারির ১ তারিখে পারিবারিকভাবে বিয়ে হয় তাদের। ছবি: সংগৃহীত

অপু-ফারিয়ার সম্পর্ক তাদের দুই পরিবার জানলে তারাও এতে পূর্ণ সমর্থন দেন। ২০১৯ সালের ফেব্রæয়ারির ১ তারিখে পারিবারিকভাবে বিয়ে হয় তাদের।

ফারিয়া ২০১৩ সালে আদনান আল রাজীব পরিচালিত ‘অল টাইম দৌড়ের ওপর’ নাটকে অভিনয়ের মাধ্যমে অভিনেত্রী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন। এর থেকেই তিনি জনপ্রিয়তা লাভ করেন। ছবি: জাগো নিউজ

ফারিয়া ২০১৩ সালে আদনান আল রাজীব পরিচালিত ‘অল টাইম দৌড়ের ওপর’ নাটকে অভিনয়ের মাধ্যমে অভিনেত্রী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন। এর থেকেই তিনি জনপ্রিয়তা লাভ করেন।

Check Also

কী আছে এই সোনার হোটেলে?

এই হোটেলটি বাণিজ্যিকভাবে উদ্বোধনের আগে এক ব্রিটিশ সাংবাদিক ঘুরতে এসেছিলেন। তিনি সবকিছু দেখে মুগ্ধ হয়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *