Breaking News
Home / সারা বাংলা / রিপনকে হত্যার আসল কারণ জানালেন খুনি বরকত

রিপনকে হত্যার আসল কারণ জানালেন খুনি বরকত

যশোর  প্রতিনিধি :   যশোরের বাঘারপাড়ায় প্রাইভেট কারচালক রিপনকে হত্যার কথা স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন বরকতুল্লাহ খান। সোমবার যশোর জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. মঞ্জুরুল ইসলাম জবানবন্দি শেষে তাকে জেলহাজতে পাঠানোর আদেশ দেন।

আসামি বরকত যশোর শহরের বারান্দী মোল্যাপাড়ার মৃত মাহফুজুর রহমানের ছেলে। জবানবন্দিতে বরকতুল্লাহ স্বীকার করেছেন, স্ত্রীকে উত্ত্যক্ত নয় মোটরসাইকেল মেরামত নিয়ে বাগবিতণ্ডার পর হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

এদিকে বাঘারপাড়ায় প্রাইভেটকার চালক রিপন হত্যাকাণ্ডের খুনির ফাঁসির দাবিতে ফের বিক্ষোভ মিছিল করেছে এলাকাবাসী। সোমবার দুপুরে উপজেলা সদরে কয়েক দফা মিছিল বের হয়। এতে অংশ নেন এলাকাবাসী, মাইক্রোস্ট্যান্ড সমিতি ও চাড়াভিটা স্ট্যান্ডের চালকরা।

বরকতুল্লাহ আদালতকে জানিয়েছে, দ্বিতীয় স্ত্রী পিংকিকে নিয়ে রোববার দুপুরের দিকে বাঘারপাড়া উপজেলা শহরে গিয়েছিলেন তিনি। যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে নিজের মোটরসাইকেলটি মেরামতের জন্য বাঘারপাড়া মাইক্রো স্ট্যান্ডে শিমুলের গ্যারেজে গিয়েছিলেন। মেরামত করা নিয়ে শিমুলের সঙ্গে তার বাগবিতণ্ডা হওয়ায় তাকে কিলঘুষি মারেন বরকত। এসময় পাশে থাকা মহিরণ গ্রামের মধ্যপাড়ার মনিরুল ইসলামের ছেলে শওকত হোসেন রিপনসহ কয়েকজন সেখানে যান। এ সময় বরকত রিপনকে চাকু দিয়ে বুকে আঘাত করেন। এতে তিনি মাটিতে পড়ে গেলে স্থানীয়রা প্রথমে বাঘারপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক রিপনকে মৃত ঘোষণা করেন।

ওইদিনই বরকতুল্লাহকে আটক এবং এই ব্যাপারে বাঘারপাড়া থানায় মামলা করা হয়। সোমবার আদালতে সোপর্দ করা হলে জবানবন্দি প্রদান করেন বরকতুল্লাহ। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বাঘারপাড়া থানার ওসি সৈয়দ আল মামুন।

Check Also

চার মাস বেতন বন্ধ, থালা হাতে বিক্ষোভ

গাইবান্ধা  প্রতিনিধি :   করোনা পরিস্থিতিতে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার মহিমাগঞ্জের রংপুর চিনিকলের শ্রমিক-কর্মচারীদের চার মাসের বেতন বন্ধ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *