Home / খেলাধুলা / মিরপুরে টিকিটের জন্য হাহাকার

মিরপুরে টিকিটের জন্য হাহাকার

স্পোর্টস ডেস্ক   :    দিনের প্রথম ম্যাচ শুরু হতে তখনো পৌনে এক ঘণ্টা বাকি। স্টেডিয়ামের মাইকে ঘোষণা এলো, ‘আজকের ম্যাচের টিকিট বিক্রি শেষ, আজ আর টিকিট নেই’। অথচ তখনো স্টেডিয়ামের এক নম্বর গেট সংলগ্ন টিকিট কাউন্টারে দর্শকের দীর্ঘ লাইন। গেটের সামনের রোডেও দর্শকের ভিড়।বেশিরভাগই তখনো টিকিট পাননি!

মিরপুরে শুক্রবার দুপুর দুইটায় শুরু ঢাকা ডায়নামাইটস ও রংপুর রাইডার্সের ম্যাচের আগের ঘটনা এটি। বিপিএলের গত আসরের দুই ফাইনালিস্টের ‘বিগ’ ম্যাচ, আবার সাপ্তাহিক ছুটির দিন।গ্যালারিতে বসে ম্যাচ দেখতে তাই অনেকেই ছুটে আসেন মিরপুরে। প্রথম চার দিনের আট ম্যাচে যে দৃশ্য ছিল বিরল।

বেশিরভাগ ম্যাচেই মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামের গ্যালারি খাঁ খাঁ করছিল। দর্শক-খরা নিয়ে প্রথম কয়েক দিনে কম আলোচনা হয়নি। মাঠে দর্শক টানতে তাই আগের দিন বিপিএলের ম্যাচ শুরুর সময়ে পরিবর্তন আনা হয়। শুক্রবার বাদে অন্য দিনগুলোর প্রথম ম্যাচ সাড়ে ১২টা থেকে পিছিয়ে এক ঘণ্টা দেরিতে এবং পরের ম্যাচ ৫টা ২০ মিনিট থেকে সাড়ে ছয়টায় শুরুর সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয় বিসিবি থেকে।

কিন্তু পরদিনই মিরপুরে টিকিটের জন্য হাহাকার দর্শকদের। অবশ্য ম্যাচ শুরুর পর গ্যালারি যে ফাঁকা ছিল তাও নয়। কানায় কানায় পূর্ণ না হলেও প্রথম কয়েক দিনের তুলনায় দর্শক ছিল অনেক বেশি। সময় গড়ানোর সঙ্গে সেটি বাড়বে বলেই ধারণা।
তবে খেলা দেখার আগ্রহ নিয়ে এসে হতাশ টিকিট না পাওয়ারা। অনেকে আবার টিকিট কালোবাজারির অভিযোগও তুললেন। স্টেডিয়ামের বাইরে টিকিটের জন্য অপেক্ষামান মিনারুল বললেন, ‘আমি আরো দুই ঘণ্টা আগে এখানে আসি। এখান থেকে লাইনে ছিলাম। কিন্তু যেখানে দাঁড়িয়েছিলাম সেখানেই থাকি। পরে ওখানে গিয়ে জিজ্ঞেস করি যে টিকিট আছে, বলে টিকিট শেষ হয়ে গেছে, এখন দুই হাজার টাকা দামের টিকিট পাওয়া যাবে। কিছু কিছু জায়গায় দেখলাম টিকিট কালোবাজারিতে বিক্রি হচ্ছে। যেখানে ৩০০ টাকার টিকিট, সেখানে তিনটা ৩৬০০ টাকা বিক্রি করছে।’

গাজীপুরের কোণাবাড়ি থেকে এসেছেন শ্রী হরিদাস। তিনি বললেন, ‘টিকিট আমরা পাচ্ছি না। কাউন্টারে গিয়েছিলাম, বলল টিকিট দিচ্ছে না, কাউন্টার বন্ধ। তাই দাঁড়িয়ে আছি।’ তার সঙ্গেই আসা আরেকজনও একই কথা বললেন।

খিলগাঁ থেকে আসা কলেজ ছাত্র ইমরানও টিকিট না পেয়ে হতাশ, ‘কাউন্টারের ওখানে গেলাম, ওরা বলছে টিকিট শেষ, দুই হাজারের নিচে কোনো টিকিট নাই। পরে আবার গেছি, তখন পুলিশ ধাওয়া করছে।’

উত্তেজিত দর্শকদের তখন কাউন্টারের সামনে থেকে সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছিলেন বেশ কিছু পুলিশ সদস্য। ক্ষুব্ধ অনেক দর্শক আবার পুলিশ সদস্যদের লক্ষ্য করে জুতো ছুড়ে মারছিলেন।

Check Also

টস জিতে ফিল্ডিংয়ে বাংলাদেশ

স্পোর্টস ডেস্ক :    বিশ্বকাপে এর আগে বাংলাদেশ ওয়েস্ট ইন্ডিজের মুখোমুখি হয়েছে চারবার। একবারও জয় নেই …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *