Wednesday , November 21 2018
Home / আর্ন্তজাতিক / বুলগেরিয়ান নারী সাংবাদিক হত্যায় সন্দেহভাজন গ্রেপ্তার

বুলগেরিয়ান নারী সাংবাদিক হত্যায় সন্দেহভাজন গ্রেপ্তার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : বুলগেরিয়ান সাংবাদিক ভিক্তোরিয়া মারিনোভাকে ধর্ষণ ও হত্যার অভিযোগে জার্মানিতে এক তরুণকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। সন্দেহভাজন ঐ তরুণ বুলগেরিয়ার নাগরিক। বুধবার বিবিসি এ খবর প্রকাশ করে।বুলগেরিয়ার কর্মকর্তারা জানায়, তাদের অনুরোধে সেভেরিন কারাসিমিরভ নামে এক ব্যক্তিকে এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে জার্মানির পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে।

বুলগেরিয়ার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এমলাদেন মারিনভ বলেছেন, হত্যার স্থান থেকে পাওয়া আলামতের ডিএনএ’র সঙ্গে সন্দেহভাজনের ডিএনএ’র মিল পাওয়া গেছে।

কর্মকর্তারা বলছেন, বর্তমানে প্রাপ্ত আলামতে ভিত্তিতে বলা যাচ্ছে মারিনোভার খুনের সঙ্গে তার সাংবাদিকতা পেশার কোনো সম্পর্ক নেই।

গত শনিবার বুলগেরিয়ার উত্তরাঞ্চলীয় শহর রুজের একটি পার্কে মারিনোভাকে ধর্ষণের পর মারধর ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়।

ভিক্তোরিয়া মারিনোভা সম্প্রতি টেলিভিশনে অনুসন্ধানী প্রতিবেদন বিষয়ক একটি টক-শোর উপস্থাপনায় ছিলেন। মৃত্যুর আগে অনুষ্ঠানটির মাত্র একটি পর্বে এ মারিনোভাকে দেখা গেছে। রাজনীতিবিদ ও ব্যবসায়ীদের একটি নেটওয়ার্ক ইইউর তহবিলের অপব্যবহার করছে, এমন অভিযোগ নিয়ে দুই সাংবাদিক ওই পর্বে আলোচনা করেছিলেন।

প্রধান কৌঁসুলি সতির তাসাটসারভ বলেছেন, যৌন আক্রমণের উদ্দেশ্যেই এই হামলা চালানো হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। তবে অন্যান্য সম্ভাবনাগুলোও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

সন্দেহভাজন সম্পর্কে যা জানা যাচ্ছে

সাংবাদিক মারিনোভাকে ধর্ষণ ও হত্যার একদিন পর রবিবার সেভেরিন ক্রাসিমিরভ বুলগেরিয়া ত্যাগ করে জার্মানিতে চলে আসেন। তার অনুপস্থিতিতেই বুলগেরিয়াতে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয় এবং ইউরোপিয়ান গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়।

জার্মানি পুলিশ নিশ্চিত করেছেন ২০ বছর বয়সী ওই সন্দেহভাজনকে হামবুর্গের কাছে স্ট্যাড শহর থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। বুধবার তাকে আদালতে তোলার কথা রয়েছে।

Check Also

সাপের দংশনের পর ডায়েরি লেখা শুরু করেছিলেন তিনি, অতঃপর…

আন্তর্জাতিক   ডেস্ক :    সাপ। নামটি শুনলেই যেন শরীর কিলবিল কিলবিল করে ওঠে। সরীসৃপ এই প্রাণিটিকে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *