Home / ফটো গ্যালারি / আপনার মাথার কোন স্থানে কিসের ব্যথা জেনে নিয়ে চিকিৎসা করুন

আপনার মাথার কোন স্থানে কিসের ব্যথা জেনে নিয়ে চিকিৎসা করুন

মাইগ্রেন : সাধারণত মাথার এক দিকে ব্যথা শুরু হয়। তারপরে তা ছড়িয়ে পড়ে সারা মাথায়। মাইগ্রেনের ব্যথা নিয়ে গবেষণা চললেও এখনও পর্যন্ত সঠিক কোনো চিকিৎসা বা ওষুধ বের হয়নি। পেইন-কিলারই একমাত্র উপায়, যা চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া খাওয়া কখনওই উচিত নয়।

মাইগ্রেন : সাধারণত মাথার এক দিকে ব্যথা শুরু হয়। তারপরে তা ছড়িয়ে পড়ে সারা মাথায়। মাইগ্রেনের ব্যথা নিয়ে গবেষণা চললেও এখনও পর্যন্ত সঠিক কোনো চিকিৎসা বা ওষুধ বের হয়নি। পেইন-কিলারই একমাত্র উপায়, যা চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়া খাওয়া কখনওই উচিত নয়।

টেনশনের ব্যথা : সারা মাথা জুড়েই এই ব্যথা হয়। মনে হয় মাথাটা কেউ চেপে ধরে রেখেছে। সাধারণত ‘ওটিসি পেন রিলিভার’ জাতীয় ওষুধেই কাজ হয় এমন ব্যথায়।

টেনশনের ব্যথা : সারা মাথা জুড়েই এই ব্যথা হয়। মনে হয় মাথাটা কেউ চেপে ধরে রেখেছে। সাধারণত ‘ওটিসি পেন রিলিভার’ জাতীয় ওষুধেই কাজ হয় এমন ব্যথায়।

সাইনাস : এ ক্ষেত্রে ব্যথা হয় চোখে ও গালে। সাইনাস টিউবে যে মিউকাস জমে, তা পরিষ্কার রাখাই এই ব্যথার প্রতিরোধ। তবে বেশিরভাগ সময়েই সাইনাসের ব্যথাকে মাইগ্রেনের ব্যথা বলে ভুল করে মানুষ।

সাইনাস : এ ক্ষেত্রে ব্যথা হয় চোখে ও গালে। সাইনাস টিউবে যে মিউকাস জমে, তা পরিষ্কার রাখাই এই ব্যথার প্রতিরোধ। তবে বেশিরভাগ সময়েই সাইনাসের ব্যথাকে মাইগ্রেনের ব্যথা বলে ভুল করে মানুষ।

বাজ পড়ার মতো ব্যথা : কয়েক মিনিটের জন্য এই ব্যথা হতে পারে। মনে হয় যেন মাথার উপর বাজ পড়ছে। এমন ব্যথা কখনওই অগ্রাহ্য করা উচিত নয়। স্ট্রোক, ব্রেন হেমারেজের মতো মারাত্মক কিছু হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

বাজ পড়ার মতো ব্যথা : কয়েক মিনিটের জন্য এই ব্যথা হতে পারে। মনে হয় যেন মাথার উপর বাজ পড়ছে। এমন ব্যথা কখনওই অগ্রাহ্য করা উচিত নয়। স্ট্রোক, ব্রেন হেমারেজের মতো মারাত্মক কিছু হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

ক্লাস্টার : সাধারণত শুরু হয় একটি চোখের পিছন দিক থেকে। তারপরে তা ছড়িয়ে পড়ে। নাক বন্ধ হয়ে যায় ও চোখ থেকে জলও পড়ে।

ক্লাস্টার : সাধারণত শুরু হয় একটি চোখের পিছন দিক থেকে। তারপরে তা ছড়িয়ে পড়ে। নাক বন্ধ হয়ে যায় ও চোখ থেকে জলও পড়ে।

অ্যালার্জি থেকে মাথা ব্যথা : মাথার উপরে ব্যথা হয়। সঙ্গে হাঁচি, নাক থেকে জল পড়া, চোখ থেকে জল পড়া মানে বুঝতে হবে কিছু থেকে অ্যালার্জি হয়েছে।

অ্যালার্জি থেকে মাথা ব্যথা : মাথার উপরে ব্যথা হয়। সঙ্গে হাঁচি, নাক থেকে জল পড়া, চোখ থেকে জল পড়া মানে বুঝতে হবে কিছু থেকে অ্যালার্জি হয়েছে।

এয়ারপ্লেন ব্যথা : বাতাসের চাপ কমা-বাড়ার উপর নির্ভর করে এই মাথা ব্যথা। পরিমাণ মতো জল খাওয়া ও ওটিসি পেন রিলিভার’ জাতীয় ওষুধেই কাজ হয় এমন ব্যথায়।

এয়ারপ্লেন ব্যথা : বাতাসের চাপ কমা-বাড়ার উপর নির্ভর করে এই মাথা ব্যথা। পরিমাণ মতো জল খাওয়া ও ওটিসি পেন রিলিভার’ জাতীয় ওষুধেই কাজ হয় এমন ব্যথায়।

দৈনন্দিন চাপের জন্যই হয় এমন ব্যথা। বেশি মাত্রায় ওয়ার্কআউট করলেও হতে পারে এমন ব্যথা। এই ব্যথা হতে পারে মাথার যে কোনও জায়গায়।

দৈনন্দিন চাপের জন্যই হয় এমন ব্যথা। বেশি মাত্রায় ওয়ার্কআউট করলেও হতে পারে এমন ব্যথা। এই ব্যথা হতে পারে মাথার যে কোনও জায়গায়।

Check Also

ছবিতে দেখুন জাতীয় মসজিদে এরশাদের জানাজায় মানুষের ঢল

এরশাদের জানাজায় অংশ নিতে মানুষের ঢল। সোমবার বাদ আসর এরশাদের জানাজা পড়ান বায়তুল মোকাররম মসজিদের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *